শিক্ষা

প্রোগ্রাম ও প্রোগ্রামিং কী? প্রোগ্রামিং কিভাবে শিখবেন?

সফ্টওয়্যার, ওয়েবসাইট, অ্যাপ, গেম ইত্যাদি কিভাবে তৈরি হয়? এই প্রশ্নের উত্তর হল প্রোগ্রামিং এর মাধ্যমে। আর কম্পিউটার ও মানুষের মধ্যে যোগাযোগের বিষয়টি সহজ করে দেয় প্রোগ্রামিং ল্যাংগুয়েজ। প্রোগ্রাম ও প্রোগ্রামিং কি? প্রোগ্রামিং ল্যাংগুয়েজ, কিভাবে প্রোগ্রামিং শিখবেন, এ সকল বিষয় থাকছে আজকের ব্লগে।

প্রোগ্রাম কী?

প্রোগ্রাম হলো নির্দেশাবলীর একটি সমন্বয় যা কম্পিউটারকে নির্দিষ্ট কাজ সম্পাদন করার নির্দেশ দেয়। এই নির্দেশাবলী বিভিন্নভাবে লেখা যেতে পারে, তবে সবচেয়ে সাধারণ উপায় হলো প্রোগ্রামিং ভাষা ব্যবহার করা। 

প্রোগ্রামিং কী?

প্রোগ্রামিং হলো কম্পিউটারকে নির্দেশাবলী প্রদানের প্রক্রিয়া যাতে সে নির্দিষ্ট কাজ সম্পাদন করতে পারে। অন্য ভাবে বলা যায়, প্রোগ্রামিং হলো কম্পিউটারকে নির্দেশ দেওয়ার প্রক্রিয়া, যা কৃত্রিম ভাষা ব্যবহার করে যেন কম্পিউটার বুঝতে পারে। প্রোগ্রামিংয়ের মাধ্যমে আমরা কম্পিউটারকে দিয়ে বিভিন্ন কাজ করতে পারি। কম্পিউটার প্রোগ্রামিং শিখলে বিভিন্ন ধরণের সফ্টওয়্যার, ওয়েবসাইট, অ্যাপ, গেম ইত্যাদি তৈরি করা যায়। এছাড়াও প্রোগ্রামিং জ্ঞান ডেটা বিশ্লেষণ, মেশিন লার্নিং, কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা ইত্যাদি ক্ষেত্রেও কাজে লাগে।

প্রোগ্রামিং ল্যাংগুয়েজ

কম্পিউটার মানুষের ভাষা বোঝেনা। তার নিজস্ব কিছু ভাষা আছে যা প্রোগ্রামিং ভাষা বা প্রোগ্রামিং ল্যাঙ্গুয়েজ নামে পরিচিত। অনলাইন হিস্টোরিক্যাল এনসাইক্লোপিডিয়া অফ প্রোগ্রামিং ল্যাঙ্গুয়েজ অনুসারে, মানুষ প্রায় ৮৯৪৫টি কোডিং ভাষা তৈরি করেছে। এর ভেতর কয়েকটি জনপ্রিয় ভাষা হলো-

  1. Python
  2. Java
  3. C++
  4. CSS
  5. JavaScript
  6. C#
  7. PHP
  8. Ruby
  9. Go
  10. Swift

সাধারণত প্রোগ্রামিং এর জন্য যেকোনো একটি অথবা দু’টি ভাষাতে দক্ষ হলেই প্রোগ্রামার হিসেবে ক্যারিয়ার শুরু করা সম্ভব। আরো জানতে হবে কোন ধরণের অপারেটিং সিস্টেমের জন্য কোন ল্যাঙ্গুয়েজ দরকার। এপের ধরণ অনুযায়ী ল্যাঙ্গুয়েজ ঠিক করতে হবে।

কিভাবে প্রোগ্রামিং শিখবেন?

নিচে প্রোগ্রামিং শিখার কিছু টিপস ও মাধ্যমের উল্লেখ করা হল- 

১। সফ্টওয়্যার, ওয়েবসাইট, অ্যাপ, গেম ইত্যাদির মধ্যে কোন প্রোগ্রামিং সেক্টরে আগ্রহী তা নির্বাচন করতে হবে।

২। সেক্টর অনুযায়ী উপযুক্ত ভাষা নির্বাচন করতে হবে।

৩। অনলাইনে এবং অফলাইনে প্রোগ্রামিং শেখার জন্য অনেকগুলো রিসোর্স আছে। অনলাইন কোর্স, বই, টিউটোরিয়াল, ভিডিও ইত্যাদি মাধ্যমে প্রোগ্রামিং শেখতে পারেন।

৪। প্রোগ্রামিং শেখার সবচেয়ে ভালো উপায় হল অনুশীলন করা। যত বেশি আপনি কোড করবেন, ততই আপনি ভালো হয়ে উঠবেন।

৫। প্রোগ্রামিং কমিউনিটি তে যুক্ত হওয়া। অনলাইনে এবং অফলাইনে অনেক প্রোগ্রামিং কমিউনিটি রয়েছে যেখানে আপনি অন্যান্য প্রোগ্রামারদের কাছ থেকে সাহায্য পেতে পারেন।

অনলাইন কোর্স:

টিউটোরিয়াল:

প্রোগ্রামিং কেনো শিখবেন?

বর্তমানে প্রোগ্রামিং একটি উচ্চ চাহিদাসম্পন্ন দক্ষতা। যার ফলে প্রোগ্রামিং করে আয় করা যায়। প্রোগ্রামিং একবার শেখা হয়ে গেলে এই স্কিল ব্যবহার করে অর্থ উপার্জনের পাশাপাশি অনেক অসাধারণ কাজ করা সম্ভব। বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে কাজ করার পাশাপাশি ফ্রিল্যান্সিং প্ল্যাটফর্মগুলোতে প্রোগ্রামিং বেশ ডিমান্ডিং একটি স্কিল।

এসবের পাশাপাশি কম্পিউটারের অনেক কাজ বেশ দ্রুত করা যায় প্রোগ্রামিং জানলে। প্রোগ্রামিং এর মাধ্যমে এই অসাধারণ সুবিধা পাওয়া যেতে পারে। প্রোগ্রামিং জানলে কোনো সমস্যার সমাধান নিজে তৈরী করতে পারবেন। কোনো নির্দিষ্ট কাজের জন্য অ্যাপ খুঁজতে অ্যাপ স্টোরে ঘুরতে হবেনা। আপনার সমস্যার সমাধান আপনি নিজেই করতে পারবেন আপনার দক্ষতা ব্যবহার করে। অর্থাৎ আর্থিক ও ব্যক্তিগত, উভয় ক্ষেত্রে সুযোগসুবিধা পাবেন প্রোগ্রামিং জানলে। এই দক্ষতা দিয়ে নিজের প্রযুক্তি ভিত্তিক ব্যবসা প্রতিষ্ঠানও চালু করতে পারবেন।

প্রোগ্রামিং শেখার সুবিধা

প্রোগ্রামিং শেখার কিছু সুবিধা নিম্নে উল্লেখ করা হলো:

  1. কর্মসংস্থানের সুযোগ বৃদ্ধি পায়। প্রোগ্রামিং জ্ঞান থাকলে ভালো চাকরি অথবা ফ্রিল্যান্সিং করে উপার্জন করা যায়।
  2. নিজের জন্য কাজ করতে পারবেন।
  3. সৃজনশীলতা বৃদ্ধি পায়।
  4. সমস্যা সমাধানের দক্ষতা উন্নত করতে সাহায্য করে।
  5. প্রোগ্রামিং আপনার চিন্তাভাবনার দক্ষতা উন্নত করতে সাহায্য করে।

পরিশেষে

প্রোগ্রামিং একটি ডিমান্ডেবল সেক্টর। প্রোগ্রামিং এ দক্ষতা অর্জন করতে পারলে চাকরি অথবা ফ্রিল্যান্সিং ভালো অংকের টাকা উপার্জন করা সম্ভব। প্রোগ্রামিং সম্পর্কিত কোন প্রশ্ন বা মন্তব্য থাকলে কমেন্ট করুন।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
error: Content is protected !!